এবার ডাক্তারদের ফি নির্ধারণ করে দিবে সরকার,থাকছে জেল-জরিমানা

31
81937
ডাক্তারদের ফি,ডাক্তার

প্রায় ৩৪ বছর পর ডাক্তারদের চিকিৎসা বাবদ ফি নির্ধারণ করতে যাচ্ছে সরকার। এরই মধ্যে এ সংক্রান্ত একটি আইনের খসড়াও করা হয়েছে, যা বেসরকারি চিকিৎসাসেবা আইন ২০১৬ নামে অভিহিত হবে। নতুন আইন অনুযায়ী অফিস সময়ে কোনো ডাক্তার বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে কিংবা ব্যক্তিগত চেম্বারে রোগী দেখতে পারবেন না। ছুটির দিনে নিজ জেলার বাইরে গিয়ে বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে ব্যক্তিগত চেম্বারে রোগী দেখতে পারবেন না। উল্লিখিত নিময় না মানলে ওই ডাক্তারকে ১ লাখ টাকা জরিমানা ও ৬ মাসের কারাদণ্ড দেয়া হবে। এছাড়া আদালত উপযুক্ত মনে করলে বেসরকারি চিকিৎসাসেবা প্রতিষ্ঠানের সম্পূর্ণ কিংবা আংশিক অস্থাবর সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করতে পারবেন।

 এছাড়া নতুন এ আইনে ডাক্তাররা সরকার নির্ধারিত ফি’র তালিকা চেম্বারের সামনে দৃশ্যমান স্থানে ঝুলিয়ে রাখতে বাধ্য থাকবেন। আদায় করা ফি বাবদ রোগীকে রসিদ দিতে হবে। রশিদের মুড়ি ডাক্তার নিজ দায়িত্বে সংরক্ষণ করতে বাধ্য থাকবেন। কোনো ডাক্তার স্বীকৃত, অনুমোদিত সার্টিফিকেট কোর্স, ডিপ্লোমা বা ডিগ্রি ছাড়া কোনো যোগ্যতার বিবরণ সাইনবোর্ড, নামফলক কিংবা ভিজিটিং কার্ডে ব্যবহার করতে পারবেন না। মুক্তিযোদ্ধা ও দরিদ্র পরিবারের সদস্যদের জন্য বিনামূল্যে শতকরা ১০ ভাগ শয্যা প্রদান নিশ্চিত করতে হবে।

ডাক্তারের বিরুদ্ধে চিকিৎসাসংক্রান্ত যে কোনো ধরনের অবহেলার অভিযোগ তদন্ত করবে বাংলাদেশ মেডিকেল অ্যান্ড ডেন্টাল কাউন্সিল। ওই সংস্থার তদন্তে কোনো ডাক্তার দোষী হলে সর্বোচ্চ ২ বছরের কারাদণ্ড এবং ৫ লাখ টাকা জরিমানা করা হবে। পক্ষান্তরে কোনো ব্যক্তি ভুল চিকিৎসার শিকার হয়ে মারা গেলে কিংবা মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়ে ভাংচুর করলে এবং এর ফলে কোনো ডাক্তার কিংবা বেসরকারি চিকিৎসাপ্রতিষ্ঠান ক্ষতিগ্রস্ত হলে আক্রমণকারীকে ৩ বছরের কারাদণ্ড এবং ৫ লাখ টাকা অর্থদণ্ড করা হবে। এছাড়া অতিরিক্ত ফি আদায় করলে ডাক্তারের ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করা হবে।

আইনের খসড়া নিয়ে মঙ্গলবার এক বৈঠক শেষে এ বিষয়ে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম বলেন, ১৯৮২ সালে এ সংক্রান্ত একটি অর্ডিন্যান্স জারি করা হয়। দীর্ঘ সময় ধরে ওই আইন চলে আসছে। তবে যুগের পরিবর্তনের কারণে আইনটি প্রতিপালন হচ্ছে না। তাই নতুন করে একটি আইনের খসড়া তৈরি করে সমন্বয় সভা করা হয়েছে। পরে এ বিষয়ে বিস্তারিত জানানো হবে।

আরও পড়ুনঃ   ফাঁকা দাঁতের চিকিৎসা!

বৈঠক শেষে স্বাধীনতা চিকিৎসা পরিষদের (স্বাচিপ) সভাপতি ইকবাল আর্সনাল বলেন, নতুন আইন প্রণয়নের প্রাথমিক কাজ চলছে। ডাক্তরদের ফি এখনও নির্ধারণ হয়নি। তবে আইনটি চূড়ান্ত করা হলে তাতে ডাক্তারের ফি ও চিকিৎসাসংক্রান্ত অন্যান্য চার্জ উল্লেখ থাকতে পারে। এর বাইরে আর কিছু বলতে অপারগতা প্রকাশ করেন তিনি।

আইনের খসড়া থেকে জানা যায়, সরকার সময়ে সময়ে গেজেট নোটিফিকেশনের মাধ্যমে ডাক্তারদের ফি ও পরীক্ষা-নিরীক্ষাসংক্রান্ত চার্জ নির্ধারণ করে দেবে। কোনো ডাক্তার সেবাসংক্রান্ত কোনো ধরনের মিথ্যা প্রত্যয়নপত্র প্রদান করলে তা শাস্তিযোগ্য অপরাধ হিসেবে গণ্য হবে। সরকার নির্ধারিত ফি’র বাইরে কোনো অর্থকড়ি নেয়া যাবে না। বেসরকারি চিকিৎসাসেবা প্রতিষ্ঠানে অথবা ডাক্তারের ব্যক্তিগত চেম্বারে বাধ্যতামূলকভাবে রেজিস্ট্রার সংরক্ষণ করতে হবে। চিকিৎসাসংক্রান্ত সব তথ্য রেজিস্টারে লিখে রাখতে হবে। ওই রেজিস্ট্রার গোপনীয় দলীল হিসেবে গণ্য হবে। রোগীকে রোগের বিবরণ জানাতে হবে। প্রয়োজনীয় ও বিকল্প চিকিৎসা, চিকিৎসাসংশ্লিষ্ট পরীক্ষা-নিরীক্ষা, ওষুধের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া, চিকিৎসা পদ্ধতি এবং অস্ত্রোপচারের জটিলতা সম্পর্কে রোগীকে অবহিত করতে হবে। এমনকি খাতওয়ারি চিকিৎসা ব্যয় সম্পর্কে পরিষ্কার ধারণা দিতে হবে। সন্দেহজনক মৃত্যু, আত্মহত্যা, বিষ প্রয়োগ, বেআইনি গর্ভপাত, অগ্নিদগ্ধ হওয়া, দুর্ঘটনাজনিত ক্ষতি, লাঞ্ছিত ও প্রহৃত ক্ষতি, অন্যের দ্বারা যে কোনো ধরনের আঘাতজনিত ক্ষতির ক্ষেত্রে চিকিৎসককে অবশ্যই সংশ্লিষ্ট থানাকে অবহিত করতে হবে। ডাক্তারের বিরুদ্ধে অপরাধগুলোর তদন্ত ও বিচার ফৌজদারি কার্যবিধি ১৮৯৮-এর ৫নং আইনের আওতায় পরিচালিত হবে। ডাক্তারের অপরাধের ফলে রোগীর মৃত্যু হলে বাংলাদেশ দণ্ডবিধি-১৮৬০ এর ৪৫নং আইনের বিধান প্রযোজ্য হবে। এছাড়া সরকারি লাইসেন্স ছাড়া বেসরকারি চিকিৎসাসেবা প্রতিষ্ঠান স্থাপন ও পরিচালনা করলে ৫ লাখ টাকা জরিমানা ও ২ বছরের কারাদণ্ড অথবা উভয় দণ্ডে দণ্ডিত করা হবে।

বেসরকারি কোনো চিকিৎসাপ্রতিষ্ঠানে ক্ষমতাপ্রাপ্ত সরকারি কর্মকর্তারা পরিদর্শন, চিকিৎসাসংক্রান্ত যন্ত্রপাতি, কাগজপত্র পরীক্ষা করতে পারবেন। সরকারি নিয়মনীতি লঙ্ঘিত হয়েছে- প্রমাণিত হলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া যাবে। চিকিৎসক আইন না মানলে বাংলাদেশ মেডিকেল অ্যান্ড ডেন্টাল কাউন্সিল আইন-২০১০ অনুসারে ব্যবস্থা নেয়া হবে। পরিদর্শনকালে যদি প্রমাণ হয় জনস্বার্থেই এ প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দেয়া দরকার, তাহলে সরকার যে কোনো বেসরকারি চিকিৎসাপ্রতিষ্ঠান তাৎক্ষণিক বন্ধ করে দিতে পারবেন। এমনকি লাইসেন্সও বাতিল করতে পারবেন। সেক্ষেত্রে ১৫ দিনের সময় দিয়ে লাইসেন্স বাতিল করা হবে। লাইসেন্স বাতিল হলে বেসরকারি চিকিৎসাপ্রতিষ্ঠানে চিকিৎসারত ব্যক্তিদের ওই প্রতিষ্ঠান নিজ খরচে অন্য চিকিৎসাপ্রতিষ্ঠানে নিয়ে চিকিৎসা প্রদান করতে বাধ্য থাকবে। এ আইন কার্যকর হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে দ্য মেডিকেল প্রাকটিস অ্যান্ড প্রাইভেট ক্লিনিকস অ্যান্ড ল্যাবরেটরিজ রেগুলেশন অর্ডিন্যান্স ১৯৮২ বাতিল বলে গণ্য হবে।

আরও পড়ুনঃ   লামায় কর্মস্থলে অনুপস্থিত থেকে ডাক্তারদের নিয়মিত বেতন উত্তোলন : স্বাস্থ্য সেবা বঞ্চিত সাধারণ মানুষ

এ বিষয়ে আরেকটি আপডেট –

ডাক্তারদের ফি নির্ধারণে নতুন আইন হচ্ছে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী ( 2016-06-08)

 বুধবার সংসদের প্রশ্নোত্তরে তিনি বলেন, বর্তমানে ‘দ্য মেডিকেল প্রাকটিস অ্যান্ড প্রাইভেট ক্লিনিকস অ্যান্ড ল্যাবরেটরিজ (রেগুলেশন) অর্ডিন্যান্স-১৯৮২’ অনুযায়ী বেসরকারি পর্যায়ে চিকিৎসা সেবা কার্যক্রম পরিচালিত হচ্ছে। সেখানে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের মেডিকেল ফি, কানসালটেশন ফি নির্ধারণ করা হয়েছে।

জবাবে মন্ত্রী জানান, ওই অধ্যাদেশ হালনাগাদ ও যুগোপযোগী করে ‘বেসরকারি চিকিৎসা সেবা আইন-২০১৬’ এর খসড়া শিগগিরই চূড়ান্ত করে মন্ত্রিসভায় উপস্থাপন করা হবে।

নতুন আইন হলে বেসরকারি পর্যায়ে চিকিৎসা সেবার ক্ষেত্রে ‘যুগোপযোগী ও হালনাগাদ ফি’ নির্ধারণ সম্ভব হবে বলে জানান তিনি।

জাসদের এ কে এম রোজাউল করিম তানসেনের প্রশ্নের জবাবে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, “সরকারি হাসপাতালগুলোতে স্বাস্থ্য সেবা সম্প্রসারণে এক শিফটের পরিবর্তে দুই শিফটে বহিঃবিভাগ চালু করা হলে অধিক সংখ্যক জনগণ স্বাস্থ্য সেবা গ্রহণ করতে সক্ষম হবে।

“এ লক্ষ্যকে সামনে রেখে সম্প্রতি পরীক্ষামূলকভাবে সরকারি হাসপাতালগুলোতে বৈকালিক বহিঃবিভাগ চালু করার জন্য প্রাথমিক পর্যায়ে ১০টি হাসপাতাল নির্বাচন করা হয়েছে।”

 

বিঃ দ্রঃ গুরুত্বপূর্ণ হেলথ নিউজ ,টিপস ,তথ্য এবং মজার মজার রেসিপি নিয়মিত আপনার ফেসবুক টাইমলাইনে পেতে লাইক দিন আমাদের ফ্যান পেজ বিডি হেলথ নিউজ এ ।

31 COMMENTS

  1. This will not work in Bangladesh or any other country. That is why it is not there in India also , Before taking such steps we should also think about the doctors side of the story.

    In USA there is law for any mistakes made by Doctor but the Doctors are insured for this by the hospital so there are many sides to think about before making laws. We are experts about making laws without much research that is the reason most laws are not effective at all.

    • Yes it is correct. If we don’t think other side of the coin then thing will affect countless, many people will sue doctors unnecessary to fulfill their personal interest.

    • So u think Dr should take 500 to 1000tk per pt. Do you give it? how many time? Nobody say that complete your MBBS in pvt mc and revarts back this expanded money to keep foot on the neak of poors. Most of the pt having no money to buy medicine after paying the Dr’s fees. Mind it, its not USA. Be a citizen of Bangladesh, we should proud to our PM. Thanks

      • Thank you for your valuable comments. The recent research reveals that our country turn back to poor due to unexpected huge costs for medical treatment. The doctors are doing this heinous business for their own interest and making our people again poor. We want very strict laws to protect people from the butcher.

      • THANKS….AND ABSOLUTELY YOU ARE RIGHT BRO,……THIS IS NOT AMERICA OR WESTERN COUNTRY,….THE WESTERN COUNTRIES ARE SO SYSTEMATICALLY RUNING ON THEIR ADMINISTRATION AND THEIR PEOPLE ALSO CIVILIZE SO THEY ARE ABSOLUTELY…..RIGHT THEIR POSITIONS AT ALL,………OUR DOCTORS , OURS ADMINISTRATION, OURS EVERYTHING IS F…….KING…..COLLAPSE,…..HOSPITALS, CLINIC, PRIVATE PRACTICE,……MAKING MONEY FROM POVERTY, POOR,….PEOPLE,
        EVERYTHING IS GETTING HYPOCRISY DAY BY DAY,…… SO WHEN OUR GOVERNMENT IS GOING TO IN THE RIGHT POSITION ONLY TIME KNOWS,…….SO PEOPLE KNOWS THAT……TIME WILL BE KNOW WHAT TO DO WHAT NOT TO DO,…..

    • Thank you very much for your informative comment.I am sorry that you did not see your comment after placing .In fact,to maintain quality we need to approve each comment .Hope you did not mind.

      BTW,do you like to write for us?We are going to develop http://bdhealth.news deeply ,lots of more features are on the way.We hope for your staying with us always.With best regards -Abu Monsur

  2. ভাল হত আরো, যদি সকল ডাক্তারকে রোগীর প্রেসক্তিপশন স্পট অক্ষরে লিখার নিদেশ দেওয়া হত।

  3. Doya kore amon kaj korben na, ate kore amra sadharon manusher vogantie barbe ar kisu na, thik jemon gorur mangso, gov. 250 taka rate kore jokhon tokhon amader alakay gorur mansho chilo 100/120 taka, gov. rate korar pore ta akdiney 250taka hoyechilo, temoni akhono gram alakay onek dr. asen jara nammatro fee niye rugi dekhen or onek kom fee te rugi dekhen, fee nirdharon kore dile gorur mangsher moto hoye jabe……. tay sabdhan jodi kortey hoy tobe gramer manusher kotha chinta korey korben.
    Thanks

  4. ধন্যবাদ জানায়- বাংলাদেশের সরকারকে মন থেকে বলছি।

  5. asiar dr.holo dakat.dakat gore ase dakati kore ar dr.cembatr deke nia dakati kore. .ata ki seba na onno kishu.law korle hobe na badtobaon dorker

  6. For the first time I’m ashamed of being a doctor ( so called first class citizen)by just reading ur comments. Whenever your cell phones get damaged, u guys go to service center and pay whatever price they ask, but when ur health get damaged, u become so poor that u cant pay a consultant for ur treatment, u call them butchers. We choose this profession not for only healthcare but also to be established in ur society. First take a stand against hospital or diagnostic center owners, test fees, medication fees in a hospital, solve them then dare to blame us

  7. ডাক্তার দের ফি কমলে রোগীর সংখ্যা বাড়বে, সার্ভিস আরো খারাপ হয়ে যাবে, প্রশাসনের চাদাবাজি বাড়বে বিভিন্ন ক্লিনিকে, ডাক্তার রা তো তাও ওষধ, ব্যাবস্থা পত্র করে ভিজিট নেয়,উকিল দের কি হবে তাদের লাখ টাকার ভিজিট কি কারো গায়ে লাগেনা

  8. Sosta publicity stunt , parle govt hospita a dalaler doiratto bondo koruk, 3rd class , 4th class ar doiratto bondo koruk , aigula konodin mukhew anbo na , pase godi na thake naki oigular gur onek upor porjonto powchai , tai sob nojor doctor der dike firaya sasthosebar mul ontorai gula manuser samne antese na dorivajgula

  9. If you doctors are not satisfied with 150 or 300 take for fees let open the market for foreign doctors.I think this would be cost effective for patient’s who are taking treatment on abroad.

  10. শুধু ডাক্তার কেন?
    সব পেসারই ফি নিধারন করতে হবে।
    উকিল
    শিক্ষক
    প্যাথলজি
    বাসের ভাড়ার টিকেট প্রদান

    ইত্তাদি
    ইত্তাদি

LEAVE A REPLY