ঘুম নিয়ে এক ডজন অজানা তথ্য জেনে নিন!

0
297
ঘুম

প্রত্যেকটি প্রাণীর জন্যই ঘুম অত্যাবশ্যকীয়। নিয়মিত পর্যাপ্ত ঘুমের অভাব হলে মানুষ পাগল হওয়া থেকে শুরু করে মৃত্যুবরণও করতে পারে। কিন্তু মজার ব্যাপার হলো বিজ্ঞানীরা এখন পর্যন্ত ঘুমের পুরো প্রক্রিয়াটি ব্যাখ্যা করতে পারেন নি। এই ঘুম নিয়ে প্রত্যেকদিন অসংখ্য গবেষণা হচ্ছে আর অজানা সব তথ্য বের হয়ে আসছে। তেমনই কিছু তথ্য নিয়ে আজ হাজির হয়েছি।

১। একজন প্রাপ্তবয়স্ক মানুষের দৈনিক ৬-৮ ঘণ্টা ঘুমানো দরকার। তবে শিশুদের ক্ষেত্রে তা ১০ ঘণ্টা। আবার বৃদ্ধদের ক্ষেত্রে ৬ ঘণ্টা।

২। মানুষ সর্বোচ্চ দুই সপ্তাহ পর্যন্ত না খেয়ে থাকতে পারে, তবে ১০ দিন না ঘুমিয়ে থাকা অসম্ভব।

৩। স্তন্যপায়ীদের মধ্যে “কোয়ালাস” সবচেয়ে বেশি ঘুমায়, দৈনিক ২২ ঘণ্টা। আর সবচেয়ে কম ঘুমায় “গিরাফেস”, মাত্র ১.৯ ঘণ্টা।

৪। স্বপ্ন কিন্তু সাদাকালো আর রঙিন দুই ধরনের হয়। প্রায় ১৫% লোক সাদাকালো স্বপ্ন দেখে।

৫। প্যারাসমনিয়া অতি পরিচিত ঘুমের রোগ। এই রোগে আক্রান্ত হলে মানুষ ঘুমের মধ্যে হাঁটাহাঁটি করে। কিংবা গাড়ি চালাতে চালাতে ঘুমিয়ে যাওয়া, আর ঘুমিয়েও গাড়ি চালানো।

৬। সারাদিনের কাজকর্মগুলোই আমরা বেশি স্বপ্ন দেখি। তবে কোনো জিনিস নিয়ে বেশি চিন্তা করলে সেটিও স্বপ্নে দেখতে পারেন।

৭। ঘুমের মধ্যে মস্তিষ্ক তার কাজ করা বন্ধ করে না।

৮। কিছু কিছু প্রাণী সম্পূর্ণরূপে ঘুমায় না। তাদের মস্তিষ্কের কিছু অংশ সজাগ থাকে।

১০। ঘুমের মধ্যে মানুষের স্মৃতি বৃদ্ধি পায়, নষ্ট হয়ে যাওয়া কোষগুলো নিজে নিজেই ঠিক হয়ে যায়।

১১। মানুষের স্বপ্নের দৈর্ঘ্য মাত্র কয়েক সেকেন্ড, কিন্তু আমরা মনে করি কতই না লম্বা স্বপ্ন।

১২। মানুষ যত সুন্দর স্বপ্নই দেখুক না কেন, ঘুম থেকে ওঠার মাত্র ৫ মিনিটের মধ্যেই ৫০% ভুলে যায়। আর পরবর্তী ১০ মিনিটের মধ্যেই ৯০% ভুলে যায়।

হাসনাত আব্দুল্লাহ

বিঃ দ্রঃ গুরুত্বপূর্ণ হেলথ নিউজ ,টিপস ,তথ্য এবং মজার মজার রেসিপি নিয়মিত আপনার ফেসবুক টাইমলাইনে পেতে লাইক দিন আমাদের ফ্যান পেজ বিডি হেলথ নিউজ এ ।

আরও পড়ুনঃ   ৩০ সেকেন্ডে ঘুম আসার কার্যকরী ৫টি উপায়

LEAVE A REPLY