ফ্রুট ফালুদা

0
31
ফ্রুট ফালুদা

রমজান মাস সংযমের মাস। সারাদিন রোজা রাখার পর ইফতারি হতে হবে স্বাস্থ্যকর। আর এ গরমে ইফতারিতে মন চায়  ঠাণ্ডা কিছু খেতে।

স্বাস্থ্যকর ইফতারি হিসেবে ঠাণ্ডা  ঠাণ্ডা  ফ্রুট ফালুদার তুলনা হয় না।আর স্বাস্থ্য ভালো রাখতে এ খাবারটির জুড়ি নেই।

তাহলে জেনে নিন মজাদার ফ্রুট ফালুদার রেসিপি।

উপকরণ : আম টুকরো করে কাটা ২ কাপ, আপেল কুচি ১ কাপ,  কলা কুচি ১ কাপ, পাকা পেঁপে ১ কাপ, ঘন দুধ ১ কাপ, যে কোনো ফ্লেভারড আইসক্রিম স্বাদমতো, চিনি ২ টেবিল চামচ, মধু পরিমাণ মতো, পেস্তা কুচি ২ চা চামচ, রুহ আফজা পরিমাণ মতো, বরফ ও কিসমিস গার্নিশের জন্য।

প্রণালি : দুধ ঘন করে জ্বাল দিয়ে ঠাণ্ডা করে নিন। স্বাদ মতো চিনি দিয়ে দিন। ফলগুলো মধু দিয়ে মাখিয়ে নিন।

২টি গ্লাসে ফলগুলো দিয়ে তার ওপর ঘন দুধ দিয়ে দিন। আইসক্রিমের স্কুপ উপর থেকে দিয়ে এর ওপর পেস্তা  দিয়ে  রুহ আফজা ছড়িয়ে দিন।

এবার বরফ ও কিসমিস দিয়ে গার্নিশ করে ইফতারির টেবিলে  ঠাণ্ডা ঠাণ্ডা পরিবেশন করুন।

স্বাস্থ্যসম্মত ও মজাদার এই খাবারটির আরেকটি পদ্ধতি নিম্নরুপঃ

উপকরণ
১. কনডেন্স মিল্ক- আধা কাপ
২. দুধ- ১ লিটার
৩. সাবু দানা- ১/২ কাপ
৪. চিনি- পরিমাণ মতো
৫. নুডুলস- ২ কাপ
৬. কাজু বাদাম- ১ টেবিল চামচ
৭. মাল্টা, আনারস, আপেল, আঙ্গুর, স্ট্রবেরি, পাকা আম ও কলা কিউব করে কাটা (২৫০ গ্রাম);
৮. জেলো জমানো ২ রকমের
৯. বরফ কুঁচি- পরিমাণমত
১০. মাওয়া গুঁড়া ও ফ্রুট এসেন্স- পরিমাণ মত।

প্রস্তুত প্রণালী
প্রথমে সাবু দানা পানিতে ভিজিয়ে রাখুন। অন্য একটি পাতিলে পানি দিয়ে নুডুলস সিদ্ধ করে নিন। দুধ, কনডেন্স মিল্ক ও চিনি একসঙ্গে চুলায় দিয়ে ঘন করে নিন। তবে দুধ যেন নিচে লেগে পুড়ে না যায়- সেদিকে লক্ষ্য রাখতে হবে। তাই চুলায় দেওয়ার পর বার বার নাড়তে হবে সেগুলো। ঘন হওয়ার পর ওই মিশ্রণটি ঠাণ্ডা করার জন্য এক ঘণ্টা ফ্রিজে রাখুন।

আরও পড়ুনঃ   ত্বকের যত্নে বরফের ৫টি কার্যকরী প্যাক

এরপর অন্য একটি বাটি বা গ্লাসে পর্যায়ক্রমে প্রথমে সিদ্ধ সাবু দানা, নুডুলস এবং ঘন দুধ নিন। এবার বাদাম কুঁচি, ফ্রুট এসেন্স, আবার ঘন দুধ, নুডুলস, ফলের টুকরো, মাওয়া কুঁচি এবং সবশেষে ঘন দুধ, জেলো ও বরফ কুচি দিয়ে সাজিয়ে পরিবেশন করুন।

বিঃ দ্রঃ গুরুত্বপূর্ণ হেলথ নিউজ ,টিপস ,তথ্য এবং মজার মজার রেসিপি নিয়মিত আপনার ফেসবুক টাইমলাইনে পেতে লাইক দিন আমাদের ফ্যান পেজ বিডি হেলথ নিউজ এ ।

LEAVE A REPLY