স্বাস্থ্যজ্জল দাঁতের জন্য ১০ টি চমৎকার খাদ্য

0
104
দাঁতের খাদ্য

একটি সুন্দর হাসির জন্য আপনার স্বাস্থ্যজ্জল, সুন্দর সাদা দাঁত থাকা আবশ্যক। আমরা আমাদের দাঁত দিয়ে সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত বিভিন্ন রকমের স্বাস্থ্যকর, অস্বাস্থ্যকর খাদ্যদ্রব্য খেয়ে থাকি। যাইহোক, আমাদের খাবারের সীমাবদ্ধতা নেই বলেই এক্ষেত্রে সঠিক দাঁতের যত্ন নেয়া আমাদের জন্য আবশ্যক। এখানে কিছু চমৎকার খাদ্য সম্পর্কে দেয়া হল যা আপনাকে দিবে ঝিলিমিলি সাদা এবং শক্ত দাঁত।

১)পানিঃ

আপনার সামগ্রিক সুস্থতা বজায় রাখার জন্য পৃথিবীতে সবচেয়ে সহজলভ্য সর্বোত্তম উপাদান হল পানি। ইহা দাঁতের জন্য ও খুব ভালো , কারন ইহা আমাদের দাঁতের নিশ্চিত খনিজের যোগান দেই। পানি লালার খুব গুরুত্বপূর্ণ উপাদান এবং মাড়িকে জলয়জিত করে।

২)দুধঃ

দাঁতকে শক্তিশালী এবং বলিষ্ঠ করতে হলে ক্যালসিয়াম এর প্রয়োজন, এবং ইহা সার্বজনীন সত্য যে দুগ্ধজাত পণ্য ক্যালসিয়াম এর সর্বোৎকৃষ্ট উৎস। ক্যালসিয়ামের পাশাপাশি, দুধে আরও আছে প্রচুর ভিটামিন ডি এবং ফসফেট, যেটা দাঁতের এনামেল মেরামতে সাহায্য করে।

৩)পনিরঃ

প্রত্যেক খাবারের পর একটুকরো চীজ মখের স্বাস্থ্যর জন্য খুবই ভালো। ইহা মুখের লালা সৃষ্টি করে, যা কিনা অ্যাসিডের প্রভাবকে প্রতিরোধ করে।

৪)চাঃ

সবুজ বা কালো, উভয় প্রকার চা মৌখিক স্বাস্থ্যর জন্য চমৎকার। চাতে আছে পলিফেনল এবং ক্যাতেচিন, যা কিনা কেবল দাঁতের গহবরের সঙ্গে লড়াই করে না, এর সাথে ইহা ব্যাকটেরিয়া দ্বারা সৃষ্টিকৃত প্লাকের অবক্ষয় ঘটায়।

৫)বাদামঃ

বিভিন্ন ধরনের কুড়মুড়ে চিবানো বাদাম যা আপনাকে দিতে পারে পুষ্টির বিশাল ভাণ্ডার, যেমন-কাজুবাদাকম, কাঠবাদাম, কিশমিশ, চীনাবাদাম ইত্যাদিতে আছে প্রচুর পরিমানে বিভিন্ন রকমের খনিজ পদার্থ এবং ভিটামিন। এসবি মৌখিক স্বাস্থ্য বজায় রাখার জন্য বেশ কার্যকর।

৬)দইঃ

দাঁতের সুস্থতার জন্য দই এর উপকারিতা অনেক। কারন দইয়ের উপকারী ব্যাকটেরিয়া আমাদের দাঁতের জন্য খুব ভালো ভূমিকা রাখে। প্রতিদিন খাবারের আগে বা পরে এক কাপ দই খেতে পারলে তা আমাদের দাঁতের জন্য খুবই ভালো। সেই সাথে দাঁত পাবে প্রয়োজনীয় ক্যালসিয়াম ও প্রোটিনের পুষ্টি।

আরও পড়ুনঃ   শারীরিক দুর্বলতা কাটাতে করণীয়

৭)কালো চকলেটঃ

চকলেটের কথা শুনে অবাক হবেন অনেকেই। কারন আমরা জানি যে ছোটবেলাই দাঁত নষ্ট হয়ে যাওয়ার অন্যতম প্রধান কারন হল চকলেট। কিন্তু অনেক গবেষণায় পাওয়া গেছে যে কালো চকলেট আমাদের দাঁতের স্বাস্থ্যর জন্য ভালো। কালো চকলেটের ট্যানিন দাঁত ক্ষয়রোধ করে, রক্ত সঞ্ছালন বৃদ্ধি করে।

৮)আপেলঃ

আপেল আমাদের মুখের লালা সৃষ্টি করতে বেশ কার্যকর ভূমিকা পালন করে, যা কিনা দাঁতের ক্যাভিটি তৈরি করতে বাঁধা দিতে সাহায্য করে। রাতে খাবার পর একটি আপেল খাওয়া খুবই ভালো যা কিনা দাঁতের ভেতরে জমানো খাদ্য কনার ক্ষয় করে এবং পরিষ্কার করে।

৯)মাশরুমঃ

আমরা সবাই জানি ক্যালসিয়াম আমাদের দাঁতের জন্য খুব ভালো। মাশরুমের ভিটামিন ডি শক্ত এবং প্লাকমুক্ত দাঁতের জন্য উপযুক্ত ক্যালসিয়াম শোষণ করতে সাহায্য করে।

১০)কমলাঃ

ভিটামিন সিতে পরিপূর্ণ কমলার পুষ্টির কথা আমাদের সবাই জানি। কমলার প্রাকৃতিক এসিড আমাদের দাঁত ব্রাশ করা ও ফ্লস করার কাজে সাহায্য করে।
সুতরং পরিশেষে বলা যাই, আপনার ব্যক্তিত্বকে আরও সজীব করে তুলতে সুন্দর দাঁতের বিকল্প নেই। তাই আমাদের দাঁতের যত্নে দৈনন্দিন খাদ্য তালিকায় উপরে উল্লেখিত খাদ্যসমূহকে রাখতে হবে। সুত্রঃহোম রেমেডি সপ।

সম্পাদনাঃসৈয়দা উম্মে হাবিবা।

বিঃ দ্রঃ গুরুত্বপূর্ণ হেলথ নিউজ ,টিপস ,তথ্য এবং মজার মজার রেসিপি নিয়মিত আপনার ফেসবুক টাইমলাইনে পেতে লাইক দিন আমাদের ফ্যান পেজ বিডি হেলথ নিউজ এ ।

LEAVE A REPLY