আপনি কি ‘কৃত্রিম সুগার’ খান? তা হলে সাবধান…

0
কৃত্রিম সুগার

চিনি খেলে শরীরে ক্ষতি হয়। শরীরে শর্করার পরিমাণ বাড়তে পারে। এমনকী, চিনি খেলে মোটা হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। সেইসঙ্গে কোলেস্ট্রলরাড়ার আশঙ্কাও থাকে। কিন্তু, এই চক্করে ‘কৃত্রিম সুগার’ যারা নেন তারা জানতেও পারেন না কী রোগ বাসা বাঁধছে শরীরে।

এখন প্রায়শয়ই চিকিৎসকরা ৩০ পার হলেই চিনি কম খাওয়ার পরামর্শ দেন। চিনিতে শরীরে নানা ধরনের রোগ বাসা বাধাঁর আশঙ্কা থাকে। অবশেষে, চিকিৎসকের পরামর্শে ‘কৃত্রিম সুগার’ খান।

কিন্তু, শরীরে নিরাপত্তার জন্য ‘কৃত্রিম সুগার’ নিলেও আখেরে কতটা লাভ হচ্ছে সেটা কেউ চিন্তা করেন না। এঁদের অধিকাংশই জানেন না ‘কৃত্রিম সুগার’ শরীরের কোথায় প্রভাব ফেলছে।
সম্প্রতি, ইয়র্ক বিশ্ববিদ্যালয়ের স্কুল অফ কিনেসিওলজি এবং কানাডার হেলথ সায়েন্স একটি গবেষণায় ‘কৃত্রিম সুগার’-এ শরীরে ক্ষতির দিকগুলিকে সামনে এনেছে।

জানা গিয়েছে, ‘কৃত্রিম সুগার’-এর ফলে এই চার ধরণের রোগ বাঁধার আশঙ্কা থাকে। এগুলি হল—

১. ওজন বৃদ্ধি— ‘কৃত্রিম সুগার’ গ্রহণ করার ফলে ওবেসিটি বাড়তে থাকে। এর জেরে ওজন বৃদ্ধি হয়।

২. মেটাবলিক সিনড্রোম— এতে রক্তচাপের বিপুল ক্ষতি হয়।

৩. টাইপ টু ডায়াবিটিস— কৃত্রিম চিনি গ্রহণ করলে এমনিতেই ডায়াবিটিসের আশঙ্কা থাকে।

৪. হাইপার টেনশন এবং কার্ডিওভাসকুলার ডিজিজ— দুই-এর বেশি ‘কৃত্রিম সুগার’-এর খণ্ড কেউ যদি রোজ ব্যবহার করে তাহলে এইসব রোগের প্রাদুর্ভাব অবশ্যাম্ভাবি হয়ে পড়ে।

আরও পড়ুনঃ   হরমোন ভারসাম্যহীনতার ৭টি লক্ষণ ভুলেও অগ্রাহ্য করবেন না

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

one × one =