একটু হাঁটলেই হাঁপিয়ে উঠছেন?

0
ক্লান্তি

সিঁড়ি দিয়ে সামান্য হাঁটলে বা ওঠানামা করলেই যদি হাঁপিয়ে যান তবে বুঝতে হবে আপনার শরীরে ঘাটতি রয়েছে এনার্জির। এনার্জির অভাবে ঘনঘন ক্লান্ত লাগে। এছাড়া কমে যায় কর্মক্ষমতা। ক্লান্তি কমিয়ে দিনভর কর্মক্ষম থাকতে চাইলে দৈনন্দিন ডায়েট চার্টে রাখতে পারেন এই খাবারগুলো-

কলা
প্রচুর পরিমাণে পটাসিয়াম পাওয়া যায় কলায়। পটাসিয়াম শর্করাকে ভেঙে এনার্জির যোগান ঠিক রাখতে বিশেষ ভূমিকা পালন করে থাকে। পাশাপাশি কলায় থাকা ভিটামিন বি, সি, ওমেগা থ্রি ফ্যাটি অ্যাসিড, ফাইবার এবং কার্বোহাইড্রেট দেহে পুষ্টির ঘাটতি হতে দেয় না। প্রতিদিন সকালে একটি কলা খাওয়ার চেষ্টা করুন। এটি কাছে ঘেঁষতে দেবে না ক্লান্তি।

ওটমিল
ওটমিলে থাকা কার্বোহাইড্রেট শরীরের এনার্জির ঘাটতি হতে দেয় না। কার্বোহাইড্রেট ছাড়াও প্রোটিন, ম্যাগনেসিয়াম, ফসফরাস এবং ভিটামিন বি ১-এর মতো উপাদান থাকে ওটমিলে। এগুলো সুস্থ থাকতে সাহায্য করে। তাই সকালের নাস্তায় ওটমিলের সঙ্গে ফল মিশিয়ে খেয়ে নিন। এনার্জি পাবেন দিনভর।

গ্রিন টি
অফিস থেকে ফিরে এক কাপ গরম গ্রিন টি পান করতে পারেন। এটি ঝটপট ক্লান্তি দূর করবে। গ্রিন টিতে থাকা পনিফেনলস স্ট্রেস কমায়। সেই সঙ্গে শরীরে বিশেষ কিছু উপাদানের ঘাটতি মিটিয়ে শরীর এবং মস্তিষ্কের ক্লান্তি দূর করে। গ্রিন টিতে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট সহ আরও এমন কিছু উপাদান রয়েছে যা শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা এবং হজম শক্তির উন্নতিতেও সাহায্য করে।

দই
প্রোটিন এবং কার্বোহাইড্রেট হলো এনার্জির ঘাটতি দূর করার সবচেয়ে জরুরি দুটি উপাদান। আর এই উপাদান দুটি প্রচুর মাত্রায় রয়েছে দইয়ে। তাই প্রতিদিন ১ কাপ দই খান। ক্লান্তি আসবে না শরীরে।

দুশ্চিন্তা দূর করতে রোদে হাঁটুন

হাঁটার স্বাস্থ্য উপকারিতা

আরও পড়ুনঃ   ক্লান্তি দূর করবে যেসব খাবার?

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

thirteen + 15 =