কালোজিরা ভর্তা

0
kalojira-vorta
কালোজিরা ভর্তা

উপকরণ: কালোজিরা সিকি কাপ, রসুনের কোয়া ১ টেবিল-চামচ, কাঁচামরিচ ৩-৪টি, পেঁয়াজ কুচি ১ টেবিল-চামচ, লবণ পরিমাণমতো, সরিষার তেল ১ টেবিল-চামচ।

প্রণালি: রসুন, পেঁয়াজ, কাঁচামরিচ কাঠখোলায় টেলে নিতে হবে। তেল বাদে সব উপকরণ পাটায় বেটে তেল দিয়ে মাখিয়ে ভর্তা করতে হবে।

অথবা নিম্নোক্ত প্রণালী দেখুনঃ

উপকরনঃ

কালোজিরা – ১/২ কাপ

রসুন কুচি – ২ চা চামচ

পেয়াজ কুচি – ২ চা চামচ

কাচা মরিচ/শুকনা মরিচ – ৪/৫ টি

সয়াবিন তেল – পরিমানমত

লবন – পরিমানমত

প্রনালীঃ

-প্রথমে কালোজিরা ভালো করে ধুয়ে নিয়ে শিল পাটায়বেটে নিন।

-ফ্রাই প্যানে তেল দিয়ে তাতে পেয়াজ ও রসুন কুচিদিয়ে দিন। ভালো করে নেড়ে দিন। পেয়াজ নরম হয়েএলে কালোজিরা বাটা

ও লবন দিন।

-অল্প পানি দিয়ে কিছুক্ষন ঢেকে রেখে দিন। পানি শুকিয়ে এলে কাচামরিচ দিয়ে ভাজা ভাজা হওয়া পর্যন্ত রান্নাকরুন।

-চাইলে নামানোর আগে মিহি করে কাটা ধনে পাতা কুচি দিতে পারেন।

অনেকে অবশ্য আগে কালোজিরা তাওয়ায় টেলে নিয়ে পরে পেয়াজ রসুন যোগে বেটে ভর্তা করেন। তবেঐটাতে ঝাজ একটু বেশি থাকে। অনেকে খেতে চায়না। এভাবে ভালো লাগবে আশা করি।

অরুচি,পেটে ব্যথা,ডায়রিয়া,আমাশয়,জন্ডিস,জ্বর,শরীর ব্যথা,গলা ও দাতে ব্যথা,পুরাতন মাথাব্যথা,মাইগ্রেন,চুলপড়া,খোসপঁচড়া,শ্বেতি,দাদ,একজিমা,সর্দি,কাশি,হাঁপানিতেও কালোজিরা অব্যর্থ ঔষধহিসেবে কাজ করে।

এটি মূত্র বর্ধক ও উচ্চরক্তচাপ হ্রাসকারক,গ্যসট্রিক আলসার প্রতিরোধক,ভাইরাস প্রতিরোধক,টিউমার এবংক্যান্সার প্রতিরোধক,ব্যকটেরিয়া এবং কৃমিনাষক,রক্তের স্বাবাবিকতা রক্ষাকারক,যকৃতের বিষক্রিয়ানাষক,এলার্জি প্রতিরোধক,বাতব্যথা নাশক।

বিস্তারিত জানতে পড়ুন  সর্বরোগের মহৌষধ কালোজিরা-কালিজিরার অবিশ্বাস্য যত গুণ

আরও পড়ুনঃ   টমেটো দিয়ে স্পাইসি পাস্তা

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

three × five =