চুলের যত্নে গোলাপ জল ব্যবহারের কিছু উপায়

0
গোলাপ জল ব্যবহারের উপায়

অনন্তকাল ধরে মেয়েরা নিজেদের রুপচর্চায় গোলাপ জলের ব্যবহার করে আসছেন, সে চুল হোক বা ত্বক। গোলাপ জলের অভূতপূর্ব পুনরুজ্জীবনী ক্ষমতা, দারুণ কাজ করে আপনার চুলের ওপরে। নষ্ট হয়ে যাওয়া চুল সারানো থেকে শুরু করে, চুলের ঘন ভাব ফেরানো বা তার ঔজ্জ্বল্য বাড়ানো, গোলাপ জলের সব ক্ষমতাই আছে। এছাড়াও অনেক উপায় আছে, গোলাপ জল ব্যবহার করার। আপনার লম্বা এবং শক্ত চুলের স্বপ্ন হয়ত এবার পূরণ হতে পারে, যদি দৈনিক বা সাপ্তাহিক চুল পরিচর্যার অঙ্গ হিসেবে গোলাপ জলকে অন্তর্ভুক্ত করেন। আর সবচেয়ে ভাল ব্যাপার হল, এটা পুরোপুরি প্রাকৃতিক। অন্য সব জিনিসে ক্ষতিকারক রাসায়নিক পদার্থ থাকে, যা ভালর থেকে খারাপ করে বেশি।

তোই তো আজ বোল্ডস্কাইতে আমরা গোলাপ জল ব্যবহারের এমন কিছু উপায় জানাতে চলেছি, যা চুলের পরিচর্যায় দারুনভাবে কাজে আসে। এই প্রাকৃতিক উপায়গুলো ব্যবহার করুন, যাতে চুল সুন্দর ও শক্ত হয়। একবার দেখে নিন সেগুলো। বিশেষ নির্দেশ: এসব করার আগে একবার নিজের মাথার চামড়ার পরীক্ষা করে নিন। দেখে নিন এসব প্রাকৃতিক উপায়গুলো আপনার চুলের জন্য নিরাপদ কিনা।

এ্যালোভেরা জেলের সাথে গোলাপ জল

শুকনো ও ঝিরঝিরে চুলের জন্য, এই এ্যালোভেরা ও গোলাপ জলের মিশ্রণটা ব্যবহার করুন। এটা তালু থেকে শুরু করে মাথার চুলের বাইরের দিকে আস্তে আস্তে করে লাগান। এরপর সাওয়ার ক্যাপ বা স্নানের সময় ব্যবহারের টুপি পরে থাকুন এক ঘন্টা। দীর্ঘস্থায়ী উপকারের জন্য এটা সপ্তাহে একবার করে করুন।

মধুর সাথে গোলাপ জল

একেবারে ভেতর থেকে চুলের ঔজ্জ্বল্য ফেরাতে বা কণ্ডিশনিং করতে হলে, মধু ও গোলাপ জল মিশিয়ে ব্যবহার করুন। আপনার চুল কতটা লম্বা, তার ওপর নির্ভর করবে দুটো সামগ্রী কতটা ব্যবহার করবেন। ৪০মিনিট মত মিশ্রণটি মাথায় মেখে রাখুন, তারপর ধুয়ে নিন।

ভিটামিন ই তেলের সাথে গোলাপ জল

আরও পড়ুনঃ   রূপচর্চা ও স্বাস্থ্য সুরক্ষায় অলিভ অয়েল ব্যবহার করতে জানেন কি?

ভিটামিন ই ক্যাপসুলের মধ্যে থেকে তেলটা বের করে নিয়ে তার সাথে ৪-৫ ফোঁটা গোলাপ জল মেশান। এরপর এই মিশ্রণটি আস্তে আস্তে তালুতে ঘষুন। এতে তালুর আদ্রতা বজায় থাকে এবং যে কোনও রকমের চুলকানি বা খুসকি কমে যায়। এটা চেষ্টা করুন বাড়িতে সপ্তাহে অন্তত একবার নিয়ম করে করতে।

গ্রীন টি-র সাথে গোলাপ জল

গোলাপ জলের সাথে গ্রীণ টির মিশ্রণটি চুল ধুতে ব্যবহার করুন। হালকা স্যাম্পু দিয়ে মাথা ধোয়ার পর, এই ঘরোয়া মিশ্রণটি দিয়ে চুল ধুন। এর ফলে চুল বাড়ে ও চুলের গোড়ার দিকের কোষগুলো আর শক্ত হয়।

নুনের সাথে গোলাপ জল

এক টেবিল চামচ নুনের সাথে ৪-৫ ফোঁটা গোলাপ জল মেশান। পাতলা হয়ে যাওয়া চুল ঘন করতে, এই মিশ্রণটি সোজা তালুতে লাগান।এই ঘরোয়া উপায়টি ব্যবহার করুন সপ্তাহে অন্তত দুবার, যদি দেখেন চুল পাতলা হয়ে যাচ্ছে।
গ্লিসারিনের সাথে গোলাপ জল

এক চা চামচ গ্লিসারিন নিয়ে ৪-৫ ফোঁটা গোলাপ জলের সাথে মেশান। এবার এটা চুল ধুতে ব্যবহার করুন। এতে আপনার চুল নরম হবে ও তার ঔজ্জ্বল্য ফেরত আসবে।

গোলাপ জল সোজা নিজের চুলে দিন

সবচেয়ে সোজা উপায় চুলে গোলাপ জল ব্যবহার করার হল, একটা তুলো গোলাপ জলে ভিজিয়ে নিয়ে সোজা তালুর ওপর লাগানো। এটা একটা প্রাকৃতিক ময়েশ্চারাইজারের কাজ করে। এতে চুল গোড়া থেকে পুষ্টি পায় এবং ভাল থাকে ভেতর থেকে।

মূলতানী মাটি ও গোলাপ জল

২ টেবিল চামচ মূলতানী মাটির সাথে ৫ ফোঁটা গোলাপ জল মেশান ও হাল্কা করে সেটা মাথায় লাগান। এতে রক্ত চলাচল ভাল হয়ে তালুর ও চুলের ভেঙে যাওয়ার সম্ভাবনা কমে।

ক্যাস্টরের তেলের সাথে গোলাপ জল

এক চা চামচ ক্যাস্টর ওয়েলের সাথে ৪ ফোঁটা গোলাপ জল মেশান এবং মাথায় ঘষে দিন। এক ঘন্টা মাথায় এ ভাবেই রেখে দিন, কামাল দেখার জন্য। সপ্তাহে একদিন করে এটা করুন। দেখুন আপনার চুল কেমন লম্বা ও শক্ত হয়।

আরও পড়ুনঃ   গ্যাসের চুলায় খুব সহজে তৈরি করুন বিশুদ্ধ গোলাপ জল

পেঁয়াজের রসের সাথে গোলাপ জল

দুই টেবিল চামচ পেঁয়াজের রসের সাথে ৫ ফোঁটা গোলাপ জল মেশান, পাকা চুলের সমস্যা মেটানোর জন্য। এক ঘন্টা পর হাল্কা শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এই সমস্যার থেকে রেহাই পেতে সপ্তাহে একবার করে এটা করে দেখুন।

সৌন্দর্য চর্চায় গোলাপ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

ten + twelve =