রাতে হঠাৎ ঘুম ভেঙে যাওয়ার কারণ?

0
ঘুম ভেঙে যাওয়া

রাতে ঘুম ভেঙে যাওয়া এমন কিছু ব্যাপার নয়। তবে রোজ বা প্রায়শই একই সময়ে ঘুম ভাঙলে তা চিন্তার বিষয় অবশ্যই। বিশেষজ্ঞদের মতে, মানব শরীরে বেশ কয়েকটি ‘এনার্জি মেরিডিয়ন’ রয়েছে, যা শরীরের বিভিন্ন অংশকে ভিন্ন ভিন্ন সময়ে এনার্জি জোগায়। এবং সেই কারণেই রাতে গভীর ঘুমও ভেঙে যেতে সময় লাগে না।
রাত ১১টা থেকে ১টার মধ্যে— এই সময়ে গল ব্লাডারের এনার্জি মেরিডিয়ন সক্রিয় হয়ে ওঠে। এর থেকে ধরে নেওয়া যেতে পারে যে আপনি মানসিক ভাবে হতাশাগ্রস্থ। ঘুমের ব্যাঘাত যাতে না ঘটে তার জন্য নিজেকে ভালবাসুন। এবং ক্ষমা করতে শিখুন।

রাত ১টা থেকে ৩টার মধ্যে— এই সময়ে লিভারের এনার্জি মেরিডিয়ন সক্রিয় হয়ে ওঠে। এই সময়ে ঘুম ভাঙলে বুঝতে হবে, আপনি অল্পতেই রেগে যান। ঠান্ডা জল খান। মনে করার চেষ্টা করুন কী কারণে আজ অপনি রেগে গিয়েছিলেন। এবং চেষ্টা করুন তা সমাধান করতে।
রাত ৩টা থেকে ভোর ৫টার মধ্যে— এই সময়ে লাঙ্গসের এনার্জি মেরিডিয়ন সক্রিয় হয়ে ওঠে। এর ফলে আপনি দুঃখ অনুভব করতে পারেন। এই সময়ে ঘুম ভাঙলে জোরে জোরে শ্বাস নিন। ভবিষ্যতের কথা ভাবুন ও নিজেকে আশাবাদী করুন।
ভোর ৫টা থেকে সকাল ৭টার মধ্যে— এই সময়ে বৃহদন্ত্র বা লার্জ ইনস্টেস্টাইনের এনার্জি মেরিডিয়ন সক্রিয় হয়ে ওঠে। এই সময়ে ঘুম ভাঙলে শরীরের মাসেল কানিক স্ট্রচ করুন।
কোনও কারণ ছাড়া হঠাতই ঘুম ভেঙে যাওয়া— এই পরিস্থিতিকে ‘স্লিপ ইনারশিয়া’ বলা হয়। ঘুম ভাঙলেও, এই সময় ব্রেন পুরোপুরি সজাগ থাকে না।

যে কারণে ঘুমের মধ্যে শরীর ঝাঁকুনি দেয়!

ঘুম আসার প্রাকৃতিক ১০ উপায়

আরও পড়ুনঃ   সকালে না খেলে কী হয়?

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

2 × two =