শিশুদের টিকা দিন সঠিক সময়ে

0
শিশুদের টিকা দিন

শিশুর রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে, রোগের আক্রমণ থেকে রক্ষা করতে টিকাগুলো দেয়া খুবই জরুরি। তাই জন্মের পরে প্রত্যেক শিশুকে নিয়মিত টিকা দিতে হবে। আমাদের দেশের সরকার এসব টিকা সহজভাবে দেওয়ার জন্য নানা ধরণের কার্যক্রম পরিচালনা করছেন। ফ্রি টিকাদান কর্মসুচিও আয়োজন করেছেন। তাই শিশুদের টিকা দিতে নিজে সচেতন হউন আর অনকে সচেতন করুন।

যক্ষ্মা: শিশুদেরও যক্ষ্মা হতে পারে আবার কোনো কোনো শিশু যক্ষ্মা নিয়েও জন্ম নিতে পারে। তাই যক্ষ্মা রোগ থেকে মুক্তি পেতে জন্মের পর শিশুকে (বিসিজি) যক্ষ্মার টিকা ১ ডোজ দিতে হবে।

ডিপথেরিয়া, হুপিংকাশি, ধনুষ্টংকার, হেপাটাইটিস বি, হিমোফাইলাস ইনফুয়েঞ্জা বি রোগের জন্য পেন্টাভ্যালেন্ট টিকা ও ডিপিটি, হেপাটাইটিস বি, হিব টিকা জন্মের ৬, ১০ ও ১৪ সপ্তাহ পর দিতে হবে।

নিউমোনিয়া: নিউমোনিয়া শিশুদের জন্য খুবই বিপদ জনক ব্যাধি। এরাগে প্যারালাইসেসসহ মৃত্যু পর্যন্ত হতে পারে তাই জন্মের ৬, ১০ ও ১৪ সপ্তাহ পর পিসিভি টিকার ৩ টি ডোজ দিতে হবে।

পোলিও: পোলিও আরেকটি বিপদজনত রোগ শিশুদের জন্য। কোনো শিশু পোলিও আক্রান্ত হলে সে পঙ্গু হয়ে যেতে পারে হাত বা পা চিকন হয়ে অচল হয়ে যেতে পারে। তাই জন্মের ৬, ১০ ও ১৪ সপ্তাহ এর ভিতরে বিওপিবি টিকার ৩ টি ডোজ আর আইপিভির ২ টি ডোজ দিতে হবে।

হাম ও রুবেলা: অন্যান্য রোগের ভিতরে হাম একটা বিপদজনক রোগ এ রোগ থেকে রক্ষা পেতে বাচ্চার বয়স ৯-১৫ মাস পূর্ণ হলে ২ টি ডোজের এম আর টিকা প্রদান করতে হবে।

তথ্য সূত্র: এপি

মায়ের দুধই শিশুর শ্রেষ্ঠ খাবার

আরও পড়ুনঃ   একসঙ্গে চারটি সুস্থ সন্তানের জন্ম

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

one × 5 =