২ সপ্তাহে পাকা চুল কালো করুন কিংবা ফিরিয়ে আনুন হারানো চুল!

0
1167
পাকা চুল কালো করার উপায়

এই লেখাটির টাইটেল যদিও বিডি হেলথ লিখেছে তথাপি মূল লেখাসমূহ প্রকাশিত হয়েছে যথাক্রমে দৈনিক বাংলাদেশ প্রতিদিন , নতুন সময় এবং যুগান্তর পত্রিকায়। এ পর্যায়ে লেখাসমূহ আপনার জন্য নিচে উল্লেখ করা হলঃ

(১) মাত্র এক গ্লাসেই উধাও পাকা চুল!-(বাংলাদেশ প্রতিদিন)

অল্প বয়সে চুল পেকে যাওয়া খুবই কমন একটি ঘটনা হয়ে দাঁড়িয়েছে। এ সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে একেকজন মরিয়া হয়ে ওঠেন। কেউ চুলে মেহেদী দিচ্ছেন, কেউ বাজার থেকে কৃত্রিম রং এনে তা চুলে মাখছেন। খাবারের ভেজাল আর পরিবেশ দূষণের কুফলই কম বয়সে চুল পাকার একটি অন্যতম কারণ। একটি মিশ্রণ খেয়েই এই সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে পারেন। জেনে নিন কিভাবে তৈরি করবেন সেই ম্যাজিক মিশ্রণ।

যা যা লাগবে:

– ১০০ গ্রাম তিসির তেল

– ২টি মাঝারি মাপের পাতিলেবু

– ২ কোয়া ছোট রসুন

– ৫০০ গ্রাম মধু

যেভাবে তৈরি করবেন:

একটি লেবু খোসা ছাড়ানো অার অন্যটি ছোট ছোট টুকরো হবে। এবার রসুন ও লেবু পেস্ট করে নিন। পেস্ট করার সময় কোনভাবেই পানি মেশাবেন না। এখন এই মিশ্রণের সাথে তিসির তেল এবং মধু দিয়ে আবার ভালো করে মেশান। মিশ্রণটি একটি পরিষ্কার এয়ার টাইট কাঁচের বোতলে ভরে ফ্রিজে রেখে দিন। একদিন পরে বের করে ব্যবহার করুন।

রোজ খাওয়ার আধ ঘণ্টা আগে দিনে তিন বার এক চামচ করে খান। এজন্য কাঠের চামচ ব্যবহার করবেন। ২ সপ্তাহের মধ্যেই তফাতটা ধরতে পারবেন।

মিশ্রণটি নিয়মিত খেলে পাকা চুল কালো হয়ে উঠবে। শুধু তাই নয়, মিশ্রণটি খেলে দৃষ্টিশক্তি প্রখর হবে, চুল পড়ার সমস্যা দূর হবে এবং নতুন চুল গজাবে। এছাড়া ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়াবে এবং কুঁচকানো চামড়া টানটান করবে।

(২) একটি মিশ্রণে ২ সপ্তাহে পাকা চুল হবে কালো!-(যুগান্তর)

আমরা সবাই জানি বয়স বাড়লে বা বার্ধক্য এলেই চুল পেকে যায়। কিন্তু এখন অল্প বয়সে অনেকের চুলে পাক ধরে। এটা সত্যিই বিব্রতকর। সাধারণত সঠিক পুষ্টির অভাবে এমনটা হয়ে থাকে।

তবে চুলের রঙ নির্ভর করে জিনগত বৈশিষ্ট্য এবং বিশেষ হরমোন মেলানিনের ওপর। এই মেলানিনের অভাবের কারণেই চুল পাকে। বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে শরীরের মেলানিন তৈরির ক্ষমতা কমে আসে বলেই বুড়ো বয়সে চুল পাকে। কিন্তু কম বয়সে চুল পেকে যাওয়ার একটা অন্যতম কারণ হতে পারে আমাদের শরীরে জিন বা বংশগতির প্রভাব।

আরও পড়ুনঃ   রূপচর্চা ও স্বাস্থ্য সুরক্ষায় অলিভ অয়েল ব্যবহার করতে জানেন কি?

এছাড়া খাবারদাবারের ভেজাল ও পরিবেশগত দূষণসহ অতিরিক্ত মানসিক চাপ, ধূমপান বা জীবনযাপনের নানা সমস্যার কারণেও কম বয়সে চুল পাকতে পারে।

চিকিৎসকের মতে, সঠিক পুষ্টির অভাবে অনেক সময় অল্প বয়সেই চুল পেকে যায়। মিনারেল, ভিটামিন-এ, বি, কপার, মিনারেল, আয়রনের অভাবে চুল পেকে যায়। এছাড়া অপর্যাপ্ত ঘুম, জীবন-যাপনের অনিয়ম, অযত্ন, খাদ্যাভাসের পরিবর্তন ও দুশ্চিন্তার কারণেও অনেকের চুল তাড়াতাড়ি পাকে।

এখন প্রশ্ন হলো, অল্প বয়সে আপনার চুল পেকেছে? আপনি চিকিৎসকের কাছেও গেছেন প্রতিকার চাইতে, কিন্তু দ্রুত সমাধান পাচ্ছেন না। তবে এ নিয়ে চিন্তার কিছু নেই আপনি চাইলে ঘরে বসেই একটি ম্যাজিক মিশ্রণের সাহায্যে মাত্র দুই সপ্তাহে এ সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে পারেন।

এ মিশ্রণ নিয়মিত ব্যবহারে পাকা চুল কালো করে দেবে। এর আরাও একটি গুণ হলো এটা আপনার দৃষ্টিশক্তিও প্রখর করবে। তাহলে দেরি না করে আসুন জেনে নিই, কী সেই মিশ্রণ যা আপনার সাদা চুল কালো করবে সহজেই!

ম্যাজিক মিশ্রণের উপকরণ

১শ’ গ্রাম তিসির তেল, ২টি মাঝারি মাপের পাতিলেবু, ২ কোয়া ছোট রসুন, ৫শ’ গ্রাম মধু।

প্রস্তুত প্রণালী

প্রথমে পাতিলেবু দুটি খোসা ছাড়িয়ে ছোট ছোট টুকরো করে কেটে নিন। এবার রসুন এবং পাতিলেবু মিক্সিতে পেস্ট করে নিন। ভালো মতো পেস্ট হয়ে গেলে এতে তিসির তেল এবং মধু দিয়ে ফের একবার ভালো করে মিক্স করুন। এবার মিশ্রণটি একটি পরিষ্কার এয়ার টাইট কাচের বোতলে ভরে ফ্রিজে রেখে দিন। এর একদিন পর বের করে ব্যবহার করুন।

ব্যবহার বিধি

প্রতিদিন তিন বার এক চামচ করে খেতে হবে। সকালে, দুপুরে ও রাতে খাওয়ার আধ ঘণ্টা আগে ২ সপ্তাহ এ মিশ্রণটি খেলে আপনি নিজেই চুলের পরিবর্তন দেখতে পাবেন।

সাবধানতা : এ মিশ্রণটি শুধু মাত্র কাঠে চামুচ দিয়িই তুলতে হবে। অন্য চামুচ ব্যবহার করা যাবে না।

আরও পড়ুনঃ   চুল পড়া রোধের পরীক্ষিত উপায়!

(৩) মাত্র চারটি জিনিস, ফিরিয়ে দেবে হারানো চুল-(নতুন সময়)

মানুষের সৌন্দর্য ধরে রাখে মাথার চুল। তাই ‍চুল পরা শুরু করলেই আতঙ্কিত হন সবাই। চুল পরা বন্ধ কিংবা চুলের সৌন্দর্য রক্ষায় মানুষ কত কী-ই না করেন। তবুও চুল ঝরে, টাক পরে। চুল ঝরা শুরু করেছে! কোনো চিন্তা নেই। মাত্র চারটি জিনিস চুল পরা বন্ধ করতে পারে। ফিরিয়ে দিতে পারে হারানো চুল।

চুল পরতে পরতে অনেকের মাথায় টাক পরে গেছে। তাই টাক ঢাকতে তারা কসমেটিক সার্জারি করেন। নতুন চুল গজানোর জন্য ব্যয়বহুল এ সার্জারি করার ক্ষমতা অনেকেরই নেই। আর্থিক স্বচ্ছলতা এখানে প্রধান বাধা। তাই মানুষ বিকল্প খোঁজেন। অনেক সময় প্রাকৃতিক কৌশল ভালো কাজ দেয়। মাথায় চুলও গজায়।

লাইফস্টাইল ম্যাগাজিন ‘ডে বাই ডে থ্রি সিক্সটি ফাইভ’ চুল গজানোর এমন একটি মিশ্রণের কথা বলেছে। এ মিশ্রণ ব্যবহারে ম্যাজিকের মতো মাথায় গজাবে ঘন কালো নতুন চুল।

মিশ্রণ তৈরিতে লাগবে মাত্র চারটি জিনিস—

১. ২০০ গ্রাম তিসি তেল।
২. ৪টি পাতি লেবু।
৩. ১ কেজি মধু।
৪. ৩টি রসুনের কোয়া।

প্রথমে রসুন ও পাতি লেবু ছোট ছোট টুকরো করে একসঙ্গে বেটে নিন। এটি ব্লেন্ডারেও করা যাবে। এরপর তিসির তেল ও মধু তার সঙ্গে মিশিয়ে দিন। এবার মিশ্রণটি একটি পাত্রে ভরে ফ্রিজে রাখুন। তৈরি হয়ে গেল ম্যাজিক মিশ্রণ।

এক চা-চামচ করে দিনে তিনবার খান মিশ্রণটি। খাওয়ার ৩০ মিনিট আগে ফ্রিজ থেকে বের করুন। স্বাভাবিক তাপমাত্রায় রাখুন। খাওয়ার পর পাত্রটিকে আবারও ফ্রিজে রাখুন।

মিশ্রণের উপকারিতা পেতে লাগবে দুই সপ্তাহ। এরমধ্যেই টাকে চুল গজানো শুরু করবে। এ মিশ্রণ স্বাস্থ্যের সামগ্রিক উন্নতিও ঘটাবে। বাড়াবে চোখের দৃষ্টিশক্তি। বাড়বে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

one × three =